NAVIGATION MENU

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগরে ১৭ কি:মি: গ্যাস পাইপলাইন বসানোর কাজ শেষ


মিরসরাই, সীতাকুণ্ড ও ফেনীর সোনাগাজীতে গড়ে তোলা হচ্ছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগর।

৩০ হাজার একর জমিতে হচ্ছে এ শিল্পনগর ।এর মধ্যে ১৭ কিলোমিটার গ্যাস পাইপলাইন বসানোর কাজ শেষ করেছে কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড (কেজিডিসিএল)।

এপর্যন্ত কাজ শেষ করতে ২৯০ কোটি টাকা ব্যয় হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি গ্যাস সরবরাহের জন্য প্রস্তুতও রয়েছে।

কেজিডিসিএল প্রতিষ্ঠানটি প্রাথমিক চাহিদা নিশ্চিতে একটি ২০০ মিলিমিটার ঘনফুটের সিজিএস ও ৫০ মিলিয়ন ঘনফুটের দুটি ডিআরএস বসিয়েছে।

তবে প্রাথমপর্যায়ে গ্যাসের ৪০ মিলিয়ন ঘনফুট ব্যবহার হবে বিদ্যুৎ উৎপাদনে, বাকিটা যাবে কারখানায়। শিল্পনগর পুরোদমে চালু হলে গ্যাসের চাহিদা হবে সাড়ে ৭শ’ মিলিয়ন ঘনফুট। কর্তৃপক্ষের আশা, পর্যাপ্ত গ্যাস সরবরাহে তাদের কোনো সমস্যা হবে না।

এর আগে কেজিডিসিএল কর্তৃপক্ষ সীতাকুণ্ডের বড় দারোগাহাট এলাকার মূল সরবরাহ লাইন থেকে মিরসরাই ইকোনমিক জোন পর্যন্ত২৮৯ কোটি ৮৮ লাখ টাকা ব্যয়ে ১৭ কিলোমিটার ১৬ ইঞ্চি ব্যাসের পাইপলাইন নির্মাণ কাজ শেষ করে। যা দৈনিক ২০০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ করা সম্ভব।

আরো পড়ুনঃ

আশুলিয়ায় ১৫শ’ অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন

‘কন্সট্রাকশন অব গ্যাস পাইপলাইন ফর মিরসরাই ইকোনমিক জোন’ এর প্রকল্প পরিচালক প্রকৌশলী আ ন ম সালেহ বলেন, পাইপলাইন বসানোর কাজ শেষ করে ৩০ আগস্ট গ্যাস সরবরাহ উদ্বোধন করা হয়েছে।

সীতাকুণ্ডের বড় দারোগাহাট গ্যাস লাইন থেকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগর পর্যন্ত ১৭ কিলোমিটারে এ পাইপলাইন বসানো হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, ইতোমধ্যে দুটি প্রতিষ্ঠান গ্যাস সংযোগের জন্য আবেদন জমা দিয়েছে। এছাড়া আরও কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে গ্যাস সংযোগ দেওয়ার জন্য আলাপ-আলোচনা চলছে।

২০১৬ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের বৃহৎ ইকোনমিক জোনটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। ভূমি অধিগ্রহণসহ নানান প্রক্রিয়া শেষে ২০১৭ সালের জুন মাস থেকে শুরু হয় বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলের কাজ।

কেজিডিসিএলের মহাব্যবস্থাপক (ইঞ্জিনিয়ারিং সার্ভিস) প্রকৌশলী মো. সারওয়ার হোসেন বলেন, শিল্প কারখানাগুলোকে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে গ্যাস সরবরাহ দেওয়ার জন্যই দ্রুততম সময়ের মধ্যে গ্যাস পাইপলাইন প্রকল্পটি সম্পন্ন করা হয়েছে।

সিবি / এস এস