NAVIGATION MENU

টানা চতুর্থবারের মত বাফুফের সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন


টানা চতুর্থবারের মতো বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) সভাপতি নির্বাচিত হলেন কাজী মো. সালাউদ্দিন। তিনি পেয়েছেন ৯৪ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বাদল রায় পেয়েছেন ৪০ ভোট। অপর সভাপতি প্রার্থী শফিকুল ইসলাম মানিক পেয়েছেন এক ভোট।

এছাড়া ৯১ ভোট পেয়ে টানা চতুর্থবারের মতো সিনিয়র সহ-সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন আব্দুস সালাম মুর্শেদীও। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী শেখ মোহাম্মদ আসলাম পেয়েছেন ৪৪ ভোট। এখনও ভোট গননা চলছে। চূড়ান্ত ফলাফল পেতে অপেক্ষা করতে হবে রাত ৮টা পর্যন্ত।

শনিবার (৩ অক্টোবর)  রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে উৎসবমুখর ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে ২০২০ সালের বাফুফে নির্বাচন। দুপুর ২টার কিছু পরে শুরু হওয়া ভোটগ্রহণ কার্যক্রম চলে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত।

১৩৯ জন কাউন্সিলরের মধ্যে ১৩৫ জন তাদের ভোট প্রদান করেছেন। অর্থাৎ ভোট পড়েছে ৯৭.১২ শতাংশ। যে চারজন ভোট দেননি তারা হলেন চট্টগ্রাম আবাহনীর সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তরফদার রুহুল আমিন ও ফরিদপুর জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি নাজমুল ইসলাম খন্দকার, শেখ রাসেলের পরিচালক মাকসুদুর রহমান ও শেখ জামালের সভাপতি সাফওয়ান সোবহান। বিষয়গুলো জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালন করা মেজবাহ উদ্দিন।

চার বছর পর অনুষ্ঠিত হওয়া নির্বাচনে ২১টি পদের বিপরীতে এবারের নির্বাচনে প্রার্থী ছিলেন ৪৭ জন। সভাপতি পদে লড়ছেন তিন জন। তাদের মধ্যে ছিলেন সম্মিলিত পরিষদের প্রার্থী ও বর্তমান সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন। তার বিপরীতে ছিলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী শফিকুল ইসলাম মানিক ও বাদল রায়।

সালাউদ্দিন এর আগেও তিন মেয়াদে বাফুফে প্রধানের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেছেন। অন্যদিকে, মানিক ও বাদল প্রথমবারের মতো সভাপতি হওয়ার প্রত্যাশায় ছিলেন।

এছাড়া সিনিয়র সহ-সভাপতি পদে লড়েছিলেন দুজন। চারটি সহ-সভাপতি পদে মোট ৮ জন লড়াই করেছেন। ১৫টি সদস্য পদে লড়াই করেছেন ৩৪ জন প্রার্থী।

ওআ/