NAVIGATION MENU

চার ম্যাচ নিষিদ্ধ হলেন ডি মারিয়া


মার্শেই ডিফেন্ডার আলভারো গঞ্জালেসকে থুতু মারার অপরাধে চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন পিএসজি তারকা অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া। এমনটাই জানিয়েছে ফুটবলভিত্তিক ওয়েবসাইট গোল ডটকম।

লিগ ওয়ানে পিএসজি ও মার্শেইয়ের মধ্যকার ম্যাচে ঘটনাটি ঘটে। মার্শেইয়ের কাছে ১-০ গোলে হেরে যায় পিএসজি। ম্যাচটির শেষে লেয়ান্দ্রো ড্যানিয়েল পারদেসের এক ফাউলকে কেন্দ্র করে তর্কে জড়িয়ে যায় দুদল। তর্ক একপর্যায়ে হাতাহাতিতে রূপ নেয়। তখন গঞ্জালেসের মাথার পেছনে থাপ্পড় দিতে দেখা যায় নেইমারকে। পরে টুইট বার্তায় নেইমার জানান, গঞ্জালেস নাকি বর্ণবাদী আচরণ করেছেন। ওই ঘটনায় লাল কার্ড দেখেছেন পাঁচজন।

ঘটনার পর পাঁচ ফুটবলারের সবাইকে এক থেকে ছয় ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়। দুই ম্যাচে নিষিদ্ধ হয়েছেন পিএসজি তারকা নেইমার। সবচেয়ে বড় শাস্তি পেয়েছেন নেইমারের সতীর্থ লেভিন কুরজাওয়া। মার্শেই ডিফেন্ডার জর্ডান আমাভিকে লাথি মেরে ছয় ম্যাচে নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি। ছাড় পাননি আমাভিও। তিন ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি। এ ছাড়া পারদেসকে দুই ম্যাচ ও বেনেদিত্তোকে এক ম্যাচ নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

ঘটনার আগে গঞ্জালেসকে ডি মারিয়া নাকি থুতু মেরেছেন বলে অভিযোগ করেন মার্শেই কোচ আন্দ্রে ভিয়াস বোয়াস। পরে গতকাল বুধবার আর্জেন্টাইন তারকাকে ডেকে পাঠায় লিগের শৃঙ্খলা কমিটি। এরপর চার ম্যাচের নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা করা হয়েছে।

ওই দিন ম্যাচ শেষে এক টুইট বার্তায় নেইমার লিখেছেন, ‘গঞ্জালেসের মাথায় থাপ্পড় না দিয়ে বরং ওর মুখে ঘুষি মারা উচিত ছিল। কারণ, অকথ্য ভাষায় বর্ণবিদ্বেষমূলক গালাগাল দিয়েছে। আমাকে বাঁদর বলে গালি দিয়েছে গঞ্জালেস। আমি এর বিচার চাই।’

ওআ/